দিদারের দেবদাস হয়ে ওঠার গল্প

‘দেবদাস’ সিনেমা দেখার পর দিদারের জীবনে পরিবর্তন আসে। সে নিজেকে দেবদাস ভাবতে শুরু করে, এমনকি অ্যাফিডেভিট করে নিজের নাম পাল্টে দেবদাস রাখে। এরপর সে দেবদাসের মতো বেশভূষা ধারণ করে গ্রামের প্রতিটি বাড়িতে পারুকে খুঁজে বেড়ায়। এক বাড়িতে সে পারু নামের একটি মেয়ের দেখা পেয়ে তাকেই পারু ভেবে নেয়। মেয়েটি বিবাহিত। তার স্বামীকে সে চুনিলাল ভেবে জড়িয়ে ধরে। প্রথমে পারু ও চুনিলাল ব্যাপারটা স্বাভাবিকভাবে না নিলেও আস্তে আস্তে মেয়েটির স্বামী চুনিলালের ভূমিকায় অভিনয় করা শুরু করে। দিদাররূপী দেবদাস কোমল পানীয় ছেড়ে মদ খাওয়া শুরু করে। চুনিলাল থিয়েটারের মেয়ে এনে চন্দ্রমুখী সাজিয়ে দেবদাসের সঙ্গে প্রেমের অভিনয় করতে বলে। তবু মন গলে না দেবদাসের। এমন গল্পে নির্মিত হয়েছে নাটক ‘অবিরাম দেবদাস’।

ঈদ উপলক্ষে অবিরাম দেবদাস নাটকটি লিখেছেন বদরুল আনাম সৌদ। প্রযোজনা করেছেন আল মামুন। নাটকটিতে দিদাররূপী দেবদাস চরিত্রে অভিনয় করেছেন সাজু খাদেম। পারু ও চুনিলাল চরিত্রে দেখা যাবে জাকিয়া বারী মম ও আহসান হাবিব নাসিমকে। আরও আছেন হিল্লোল সরকার, সাইফুল আলম শামীম প্রমুখ। ঈদের দ্বিতীয় দিন রাত ৮টার বাংলা সংবাদের পর বিটিভিতে প্রচার হবে নাটকটি।

অবিরাম দেবদাস ছাড়া এবার ঈদ উপলক্ষে বিটিভিতে প্রচার হবে আরও দুটি একক নাটক। ঈদের দিন ‘মধুযাত্রা’ ও ঈদের তৃতীয় দিন দেখা যাবে ‘প্রায়শ্চিত্ত’। নাটক দুটি প্রচারিত হবে রাত ৮টার বাংলা সংবাদের পর। নূরুদ্দিন জাহাঙ্গীরের গল্পে প্রায়শ্চিত্ত নাটকটি রচনা করেছেন সুজাত শিমুল, প্রযোজনায় মনিরুল হাসান। অভিনয়ে মামুনুর রশীদ, ওয়াহিদা মল্লিক জলি, নাদিয়া আহমেদ প্রমুখ। মধুযাত্রা রচনা করেছেন নূরুদ্দিন জাহাঙ্গীর; প্রযোজনায় এল রুমা আকতার; অভিনয়ে মনোজ প্রামাণিক, মোহাম্মদ বারী প্রমুখ।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

14 + two =