পরপর দুই সিনেমায় আইশা খান

২০১৮ সালে ‘আহত ফুলের গল্প’ দিয়ে বড় পর্দায় অভিষেক হয় আইশা খানের। এরপর উপস্থাপনা, বিজ্ঞাপন, নাটক ও ওয়েব কনটেন্টে তাঁকে দেখা গেলেও সিনেমায় ছিলেন অনুপস্থিত। অবশেষে ছয় বছরের বিরতির পর গত মাসে প্রসূন রহমানের ‘শেকড়’ দিয়ে ফিরেছেন সিনেমার কাজে। শেকড়ের শুটিং শেষ হওয়ার আগেই নতুন আরও এক সিনেমায় চুক্তিবদ্ধ হলেন আইশা।

সোহেল আরমানের ‘সংবাদ’ সিনেমায় অভিনয় করছেন তিনি। গতকাল রাজধানীর এক রেস্তোরাঁয় সিনেমাটির আনুষ্ঠানিক ঘোষণা দেওয়া হয়। ১৮৭২ সালের প্রেক্ষাপটে সাজানো হয়েছে সংবাদের কাহিনি। সে সময়ের এক জমিদারবাড়িতে ঘটে যাওয়া চুরির ঘটনাকে কেন্দ্র করে নির্মিত হবে সংবাদ। এতে আইশার সঙ্গে আরও আছেন সোহেল মণ্ডল ও ইরফান সাজ্জাদ।

সিনেমায় দীর্ঘ বিরতির কারণ জানিয়ে আইশা বলেন, ‘আহত ফুলের গল্প’ সিনেমায় যখন অভিনয় করি, তখন অনেক ছোট ছিলাম। শুটিং করেছিলাম ২০১৬ সালে। মনে হয়েছিল সিনেমায় অভিনয়ের জন্য আমি পারদর্শী না। আরও প্রস্তুতির প্রয়োজন।’

অভিনেত্রী বলেন, ‘সিনেমায় অভিনয়ের পর টিভি কমার্শিয়ালে টানা কাজ করেছি। বেশ কয়েক বছর পর মনে হলো নাটকে অভিনয় করা উচিত। নাটকের পর ওয়েব কনটেন্টে সুযোগ পেলাম। এর মধ্যে হঠাৎ ভালো দুটি সিনেমার চিত্রনাট্য আমার কাছে আসে। গল্প ও চরিত্র পছন্দ হওয়ায় যুক্ত হয়ে গেলাম।’

এবার কি পুরো প্রস্তুতি নিয়েই সিনেমায় ফিরেছেন—এমন প্রশ্নের জবাবে আইশা বলেন, ‘সিনেমা অনেক বড় ক্যানভাস। এখনো সবকিছু জানি না। প্রতিনিয়ত শিখছি। আমি বলব না সিনেমার জন্য পুরোপুরি প্রস্তুত হয়ে গেছি। তবে এই দুই সিনেমার চরিত্রের জন্য নিজেকে প্রস্তুত মনে হয়েছে। যেহেতু সুযোগটা এসেছে তাই ভাবলাম ঝুঁকিটা নেওয়া যেতে পারে। সেই জায়গা থেকে আট বছর পর বড় পর্দায় ফিরলাম।’

সিনেমায় নিয়মিত অভিনয় প্রসঙ্গে অভিনেত্রী বলেন, ‘আবারও আমাদের সিনেমায় ভালো সময় শুরু হয়েছে। অনেক নতুন নির্মাতা আসছেন। অভিজ্ঞ নির্মাতারাও ফিরছেন। সেখান থেকে সিনেমায় ফেরার ভাবনাটা শুরু। ভালো গল্প ও চরিত্র পেলে অবশ্যই বড় পর্দায় কাজ করা হবে। নিয়মিত নাকি অনিয়মিত সেটা সময় বলে দেবে।’

সিনেমার পাশাপাশি ছোট পর্দায়ও নিয়মিত কাজ করার ইচ্ছা আছে আইশার। তিনি বলেন, ‘ক্লোজআপ ভালোবাসার গল্প দিয়ে নাটকের পথচলা শুরু। এরপর টানা তিন বছর ওটিটিতে কাজ করা হয়েছে। সেখানে অভিনয়ের অনেক কিছু শিখেছি। আমি তো আমার শেকড়কে ভুলে থাকতে পারব না। যা দিয়ে আমার শুরু সেটাকে ভুলে যাওয়ার শিক্ষা আমি পাইনি। ছোট পর্দা, বড় পর্দা বিষয়টি এভাবে দেখি না। সব জায়গাতেই আমাকে পারফর্ম করতে হবে। সব মাধ্যমেই নিয়মিত কাজ করার ইচ্ছা আছে। এ বছরটা কাজের মধ্যে ডুবে থাকতে চাই।’

আগামী মাসের শুরুতে সংবাদ সিনেমার শুটিং শুরু হবে। টানা শুটিং করে দৃশ্যধারণের কাজ শেষ করতে চান নির্মাতা। অন্যদিকে আইশা খান জানান, শেকড় সিনেমার ৮০ শতাংশ শুটিং শেষ হয়েছে। চলতি মাসেই কাজ শেষ হবে। এতে আইশার সঙ্গে আরও আছেন এফ এস নাঈম, দিলারা জামান, রওনক রিপন প্রমুখ।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

five − one =