ফ্রান্সের বর্ষসেরা খেলোয়াড় হলেন এমবাপ্পে

প্যারিস সেইন্ট জার্মেই( পিএসজি) ছাড়ার আগে ফ্রান্সের বর্ষসেরা খেলোয়াড়ের পুরস্কার জয় করেছেন কিলিয়ান এমবাপ্পে। সোমবার প্যারিসে আয়োজিত এক আড়ম্বরপূর্ণ অনুষ্ঠানের মাধ্যমে এমবাপ্পের হাতে সেরার পুরস্কার তুলে দেয়া হবে।

২৫ বছর বয়সী এমবাপ্পে এ নিয়ে লিগ ওয়ানে টানা পঞ্চমবার  সেরা খেলোয়াড়র নির্বাচিত হলেন।  এবারের মৌসুমে পিএসজির হয়ে সব ধরনের প্রতিযোগিতায় এমবাপ্পে ৪৪ গোল করেছেন।

ফরাসি এই অধিনায়ক গত সপ্তাহে মৌসুম শেষে পিএসজি ছাড়ার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। এ সময় তার সাথে পিএসজির বর্তমান চুক্তির মেয়াদও শেষ হয়ে যাবে। পরবর্তী সম্ভাব্য ক্লাব হিসেবে এখন পর্যন্ত রিয়াল মাদ্রিদের নামই জোড়েসোড়ে শোনা যাচ্ছে।

কাল ট্রফি হাতে এমবাপ্পে বলেছেন, ‘এটা একটি পৃষ্ঠ, যার পাতা উল্টানো জরুরী। আমার জীবনের একটি অধ্যায়ের পরিসমাপ্তি হচ্ছে। লিগ ওয়ান সবসময়ই আমার জীবনের একটি গুরুত্বপূর্ণ অংশ হয়ে থাকবে। এই লিগের মাধ্যমে আমি নিজেকে পরিনত করেছি, সবার কাছে পরিচিত হয়েছি। এই লিগের সম্মানিত প্রতিনিধি হিসেবে আমি সবসময় কাজ করার চেষ্টা করবো। অবশ্যই আমি এখানকার সবকিছু মিস করবো। এটাই জীবন, কোনকিছুই এখানে স্থায়ী নয়। যা ভবিষ্যতে আমার জীবনে আসছে তা নিয়ে আমি বেশ উত্তেজিত, অবশ্যই সেটা বিশেষ কিছু।’

রোববার পিএসজির হয়ে ঘরের মাঠ পার্ক ডি প্রিন্সেসে এমবাপ্পে শেষ ম্যাচটি খেলে ফেলেছেন। ইতোমধ্যেই লিগ ওয়ান শিরোপা নিশ্চিত করা পিএসজির হয়ে তিনি গোলও পেয়েছিলেন। কিন্তু ম্যাচটিতে টুলুসের কাছে প্যারিসের জায়ান্টরা বিস্ময়করভাবে ৩-১ গোলে হেরে গেছে।

এর মাধ্যমে এবারের লিগে এমবাপ্পে ২৭ গোল করেছেন। সর্বোচ্চ গোলদাতার তালিকায় দ্বিতীয় স্থানে থাকা লিলির কানাডিয়ান স্ট্রাইকার জোনাথন ডেভিডের তুলনায় যা আট গোল বেশী।

মৌসুম এখনো শেষ হয়নি। এমবাপ্পে এ সপ্তাহে লিগ ওয়ানে আরো দুটি ম্যাচ খেলার সুযোগ পাচ্ছে। এরপর ২৫ মে লিঁওর বিপক্ষে ফরাসি কাপের ফাইনালে খেলবে পিএসজি।

সতীর্থ খেলোয়াড়দের ভোটে এমবাপ্পে সেরা মনোনীত হয়েছেন। তার হাতে পুরস্কার তুলে দেন ২০০ ও ৪০০ মিটাওে সাবেক ফ্রেঞ্চ অলিম্পিক চ্যাম্পিয়ন মেরি-হোসে পেরেক।

ব্রেস্টের পিয়েরে লিস-মেলু, মার্সেইর পিয়েরে-এমেরিক অবামেয়াং ও লিলি এডোন জেগ্রোভার সাথে এমবাপ্পের পিএসজি সতীর্থ ওসমানে ডেম্বেলেও এই তালিকায় মনোনীত হয়েছিলেন।

ঘরোয়া আসরে পিএসজির আধিপত্যের কারনে আরো অন্যান্য কিছু এ্যাওয়ার্ডও তাদের ঘরেই এসেছে। টিনএজ মিডফিল্ডার ওয়ারেন জেইরে-এরেমি মৌসুমের সেরা তরুণ খেলোয়াড় ও গিয়ানলুইগি ডোনারুমা বর্ষসেরা গোলরক্ষকের পুরস্কার জয় করেছেন।

ব্রেস্টের কোচ এরিক রয় বর্ষসেরা কোচ মনোনীত হয়েছে। তার অধীনে ব্রেস্ট ইতিহাসে প্রথমবারের মত ইউরোপীয়ান আসরে খেলার যোগ্যতা অর্জন করেছে। মৌসুম শেষ হতে তাদের হাতে আর একটি ম্যাচ বাকি রয়েছে। ইতোমধ্যেই তারা অন্তত লিগ টেবিলের পঞ্চম স্থানটি নিশ্চিত করেছে।

বাসস

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

4 × one =