শীর্ষ স্মার্টফোন নির্মাতা এখন স্যামসাং, অ্যাপল ২ নম্বরে

আইফোনের শিপমেন্ট কমে যাওয়ায় অ্যাপলকে টপকে এখন বিশ্বের শীর্ষ স্মার্টফোন নির্মাতা স্যামসাং। ২০২৪ সালের প্রথম প্রান্তিকে আইফোনের শিপমেন্ট কমেছে ১০ শতাংশ, যার ফলে এ খাতের শীর্ষে পৌঁছানোর লক্ষ্য নিয়েছিল অ্যান্ড্রয়েড স্মার্টফোন নির্মাতা কোম্পানিগুলো, রোববার এমন তথ্য দেখিয়েছে বাজার গবেষণা কোম্পানি আইডিসি।

এ বছরের জানুয়ারি থেকে মার্চ পর্যন্ত গোটা বিশ্বে স্মার্টফোন শিপমেন্ট বেড়েছে সাত দশমিক আট শতাংশ, সংখ্যার হিসাবে যা ২৮ কোটি ৯৪ লাখ ইউনিট। এর মধ্যে ২০ দশমিক আট শতাংশ ফোন ছিল স্যামসাংয়ের, যার ফলে বিশ্বের শীর্ষ স্মার্টফোন নির্মাতা হিসেবে অ্যাপলের জায়গা নিতে পেরেছে দক্ষিণ কোরিয়ার কোম্পানিটি।

গত বছরের ডিসেম্বরের প্রান্তিকে ইতিবাচক ফলাফল দেখিয়ে স্যামসাংয়ের কাছ থেকে এ খেতাব নিজ দখলে নিয়েছিল আইফোন নির্মাতা অ্যাপল। তবে, এর পর থেকেই আইফোনের বিক্রি নিম্নমুখি।

বৈশ্বিক স্মার্টফোন শিপমেন্টের ১৭ দশমিক তিন শতাংশ দখলে রেখে এখন অবশ্য দ্বিতীয় অবস্থানে আছে অ্যাপল। এমনকি হুয়াওয়ের মতো বিভিন্ন চীনা ব্র্যান্ডের অবস্থানও উর্ধ্বমুখি এ বাজারে।প্রথম প্রান্তিকে শিপমেন্টে ১৪ দশমিক এক শতাংশ দখলে রেখে তৃতীয় স্থানে আছে চীনের অন্যতম শীর্ষ স্মার্টফোন নির্মাতা শাওমি।

এ বছরের শুরুতে নিজেদের ফ্ল্যাগশিপ স্মার্টফোন সিরিজের সর্বশেষ সংস্করণ ‘গ্যালাক্সি এস২৪’ উন্মোচন করেছিল স্যামসাং। এবারের প্রান্তিকে নতুন মডেলের স্মার্টফোনটি বিক্রি হয়েছে ৬০ লাখের বেশি।

এমনকি বৈশ্বিকভাবে গত বছরের প্রথম তিন সপ্তাহে গ্যালাক্সি এস২৩ সিরিজ বিক্রির তুলনায় নতুন গ্যালাক্সি এস২৪-এর বিক্রি আট শতাংশ বেড়ে যাওয়ার কথা জানিয়েছে ডেটা সরবরাহ কোম্পানি কাউন্টারপয়েন্ট।

আইডিসি’র তথ্য অনুসারে, বছরের প্রথম প্রান্তিকে পাঁচ কোটি ১০ লাখের মতো আইফোন বিক্রি করেছে অ্যাপল, যা গত বছরের একই সময় সরবরাহ করা পাঁচ কোটি ৫৪ লাখের চেয়ে কম।২০২৩ সালের শেষ প্রান্তিকে, চীনে আইফোনের শিপমেন্ট এর আগের বছরের তুলনায় দুই দশমিক এক শতাংশ কমে গেছে বলে প্রতিবেদনে উল্লেখ করেছে রয়টার্স।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

9 + 12 =