বোলারদের নৈপুণ্যে বিশ্বকাপে প্রথম জয় পেল নিউ জিল্যান্ড

বোলারদের দুর্দান্ত নৈপুণ্যে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ  নবম আসরে প্রথম জয়ের দেখা পেল নিউ জিল্যান্ড। আজ সকালে ‘সি’ গ্রুপে নিজেদের তৃতীয় ম্যাচে নিউ জিল্যান্ড ৯ উইকেটে হারিয়েছে উগান্ডাকে। তবে এই জয় কোন কাজে আসবে না নিউ জিল্যান্ডের। কারণ নিজেদের প্রথম দুই ম্যাচ হেরে যাওয়ায় আগেই গ্রুপ পর্ব থেকে বিদায় নিশ্চিত হয়েছে কিউইদের।

৩ ম্যাচে পূর্ণ ৬ করে পয়েন্ট নিয়ে আগেই গ্রুপ থেকে সুপার এইট নিশ্চিত করেছে আফগানিস্তান ও ওয়েস্ট ইন্ডিজ। হার দিয়ে বিশ্বকাপ শেষ করলো পাপুয়া নিউ গিনির কিপক্ষে পাওয়া একমাত্র জয় নিয়ে দেশে ফিরবে প্রথমবার মেগা ইভেন্টে খেলতে আসা উগান্ডা।

ওয়েস্ট ইন্ডিজের মাঠ ত্রিনিদাদে টস হেরে নিউ জিল্যান্ডের আমন্ত্রনে প্রথমে ব্যাট করতে নেমে ১৮ দশমিক ৪ ওভারে ৪০ রানে অলআউট হয় উগান্ডা। টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের ইতিহাসে এটিই দ্বিতীয় সর্বনিম্ন রান। যৌথভাবে সর্বনিম্ন ৩৯ রান করে আছে উগান্ডা ও নেদারল্যান্ডসের। চলতি বিশ্বকাপে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে ১২ ওভারে ৩৯ রানে অলআউট হয়েছিলো উগান্ডা। নিউ জিল্যান্ডের বিপক্ষে কোন দলের টি-টোয়েন্টিতে এটিই সর্বনিম্ন রান।

এই ইনিংসে উগান্ডার পক্ষে সর্বোচ্চ ১১ রান করেন কেনিথ ওয়াসোয়া। দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ৯ রান করেন ফ্রেড আচেলাম।

নিউজিল্যান্ডের টিম সাউদি ৪ ওভারে ৪ রানে ৩টি, ট্রেন্ট বোল্ট ৭ রানে-মিচেল স্যান্টনার ৮ রানে ও রাচিন রবীন্দ্র ৯ রানে ২টি করে উইকেট নেন। ৯ রানে ১ উইকেট নেন লুকি ফার্গুসন। বিশ্বের প্রথম কোন  দলের বোলার হিসেবে তিনজন চার ওভার করে বল করে দশের নিচে রান দেওয়ার নজির গড়েছেন সাউদি, বোল্ট ও ফার্গুসন।

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে ৪ ওভারের স্পেলে সেরা ইকোনমি রেটে বোলিংয়ের রেকর্ড গড়লেন সাউদি। আগের রেকর্ডটি ছিলো উগান্ডার ফ্রাঙ্ক এনসুবুগারের। এবারের বিশ্বকাপে পাপুয়া নিউগিনির বিপক্ষে ৪ ওভারে ৪ রানে দিয়ে ২ উইকেট নিয়েছিলেন এনসুবুগার। নিউ জিল্যান্ডের বোলারদের মধ্যে সেরা ফিগারের মালিক এখন সাউদি।

৪১ রানের সহজ টার্গেট ফিন অ্যালেনকে হারিয়ে ৫ দশমিক ২ ওভারেই তুলে ফেলে নিউ জিল্যান্ড। অ্যালেন ৯ রানে আউট হন। দ্বিতীয় উইকেটে রবীন্দ্র রাচিনকে নিয়ে নিউ জিল্যান্ডের জয় নিশ্চিত করেন ডেভন কনওয়ে। ৪টি চারে ১৫ বলে কনওয়ে ২২ ও রবীন্দ্র ১ রানে অপরাজিত থাকেন। ৮৮ বল বাকী রেখে ম্যাচ জিতে নয়া রেকর্ড গড়েছে নিউ জিল্যান্ড। নিজেদের টি-টোয়েন্টিতে সবচেয়ে বেশি বল হাতে রেখে জয়ের স্বাদ নিলো কিউইরা। ম্যাচ সেরা হন সাউদি।

বাসস

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

one × one =